মঙ্গলবার, ২৯ নভেম্বর ২০২২, ০৮:১৩ অপরাহ্ন

শিরোনাম
বরিশালে মাদক মামলার সাজাপ্রাপ্ত পলাতক আসামি গ্রেফতার বরগুনায় সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ২ বরিশালে ওয়ার্ডের বরাদ্দকৃত সারের ডিলার বিক্রির অভিযোগ, কৃষকের ভোগান্তি ২৬ শর্তে বিএনপিকে সোহরাওয়ার্দীতে গণসমাবেশের অনুমতি: ডিএমপি আগৈলঝাড়ায় প্রশাসনের অভিযানে বিপুল পরিমাণ অবৈধ কারেন্ট ও চায়না দুয়ারী জাল জব্দ আর্জেন্টিনা ব্রাজিল নিয়ে চাঁদপুরে তর্ক গড়ালো খুন পর্যন্ত। বরিশালে লঞ্চ চলাচল শুরু হওয়ায় সাধারন যাত্রীদের মাঝে ফিরেছে স্বস্তি পার্বত্য শান্তিচুক্তির ২৫ বছর পূর্তি উপলক্ষে বরিশালে আ’লীগের কর্মসূচি ঘোষণা বরিশালে জমি লিখে না দেওয়ায় স্বামীকে কুপিয়ে হত্যা, স্ত্রী গ্রেফতার সারাদেশে হাসপাতালে আরও ৩৬৬ ডেঙ্গুরোগী
তালতলীতে পল্লী বিদ্যুতের খুঁটিতে তারের জঞ্জাল, ঝুঁকিতে পথচারী

তালতলীতে পল্লী বিদ্যুতের খুঁটিতে তারের জঞ্জাল, ঝুঁকিতে পথচারী

বরগুনার তালতলী উপজেলা সদরসহ বিভিন্ন পল্লী বিদ্যুতের খুঁটিগুলো ডিশ, ইন্টারনেট আর জেনারেটরের তারে অনেকটাই ঢাকা পড়ে গেছে।
নিয়ম অমান্য করে বিদ্যুতের খুঁটিজুড়ে অন্যান্য তারের জটলায় বাড়ছে ঝুঁকি।শুধু তাই নয়, মাঝে-মধ্যেই ঘটছে ছোট-বড় দুর্ঘটনা।

অপরিকল্পিতভাবে খুঁটির সঙ্গে জড়িয়ে রাখা তারগুলোর কারণে শর্টসার্কিটের সৃষ্টিও হচ্ছে। ফলে বিভিন্ন এলাকায় ঘণ্টার পর ঘণ্টা বিদ্যুতবিহীন থাকতে হয়।
অবৈধভাবে ব্যবহার করা হচ্ছে বিদ্যুৎ।

সরেজমিনে উপজেলার বিভিন্ন এলাকা ঘুরে দেখা গেছে, প্রতিটি খুঁটিই বিদ্যুতের তারের চাইতে অন্যান্য তারের জটলা। এই তারগুলোর বড় অংশ ডিশ লাইন, জেনারেটর ও ইন্টারনেট লাইনের। কোন তার কিভাবে পেঁচানো রয়েছে তা বোঝারও উপায় নেই।
কোনো কোনো খুঁটিতে বর্ধিত তারগুলোর গোল করে পেঁচিয়ে রাখা হয়েছে। এই তারগুলোর থেকে মাঝে-মধ্যেই শর্টসার্কিট হয়ে থাকে। অনেক সময় ট্রান্সফরমারের সঙ্গে লেগে ট্রান্সফরমারে আগুন লেগে যায়।
নষ্ট হচ্ছে রাষ্ট্রীয় যন্ত্র। আবার অনেক ক্ষেত্রে ফিউজ কেটে ঘণ্টার পর ঘণ্টা বিদ্যুৎ বন্ধ থাকে। এতে একদিকে যেমন ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে রাষ্ট্রীয় যন্ত্রাংশ তেমনি দুর্ভোগ ও নিরাপত্তাহীনতায় রয়েছে বিদ্যুৎ গ্রাহক এবং পথচারীরা। ডিশ লাইনের রুক বক্সে দেওয়া হচ্ছে অবৈধভাবে বিদ্যুৎ সংযোগ। ঘাটতি হচ্ছে পল্লী বিদ্যুৎ। তা ছাড়াও লাইনম্যাদের পোলে লাইনের কাজ করতে গিয়ে শকড হচ্ছেন।

নাম প্রকাশ না করার শর্তে তালতলী বাজারের কয়েকজন ব্যবসায়ী বলেন, প্রায় সময় বিভিন্ন লাইনের ছেঁড়া তার ঝুলে থাকে বোঝার উপায় থাকে না সেটা বিদ্যুতের, ডিশের না জেনারেটরের তার। এতে করে আতঙ্ক থেকে যায়। কিছুদিন আগেও বিদ্যুৎস্পৃষ্টে হয়ে এক শ্রমিকের মৃত্যু হয়।

এদিকে বিষয়টি নিয়ে কলাপাড়া পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি ডেপুটি জেনারেল ম্যানেজার ইঞ্জিনিয়ার মোঃ শহিদুল ইসলাম মুঠোফোনে জানান,
অপরিকল্পিতভাবে বিদ্যুতের খুঁটির সঙ্গে অন্য সার্ভিস প্রভাইডারদের বিভিন্ন ক্যাবল থাকায় পোলে উঠতে যেমন সমস্যা হয়ে থাকে তেমনই সংযোগ মেরামতসহ বিভিন্ন কাজে ও বিঘ্ন ঘটে। ডিশ লাইনের রুকবক্সে নরমাল তার দিয়ে অবৈধভাবে বিদ্যুৎ সংযোগ দেওয়ায় লাইনের কাজ করতে গিয়ে শক খেতে হয়। অপর দিকে কোন তার ছিঁড়ে ঝুলে থাকলে বোঝার উপায় থাকে না সেটা বিদ্যুতের না অন্য কোনো তার। ফলে স্থানীয় ব্যবসায়ী বা পথচারীরা আতঙ্কিত হয়ে থাকে তার ঝুলে থাকা পর্যন্ত। লাইনে কাজ করতে গিয়ে কোন লাইনের তার ছিঁড়ে বা খুলে গেলে তাদেরকে হুমকি দেওয়া হয়।

নিউজটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন




আমাদের ভিজিটর

  • 207,614 জন ভিজিট করেছেন
© All rights reserved © 2019 ajkercrimetimes.com

Design and Developed By Sarjan Faraby