মঙ্গলবার, ০৬ ডিসেম্বর ২০২২, ১০:৪৯ অপরাহ্ন

শিরোনাম
সিএ রাজিবের অপসারনের দাবীতে মানববন্ধন-প্রতিবাদ সমাবেশ উজিরপুর মডেল থানার এসআই মেহেদী বরিশাল জেলার শ্রেষ্ঠ বিট অফিসার নির্বাচিত বরিশালে মুক্তিযোদ্ধার রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় দাফন মুক্তিযোদ্ধার কাছে চাঁদা দাবির অভিযোগে ১ জনকে জেলহাজতে প্রেরন বরিশালের সাংবাদিকদের সহযোগিতা চাইলেন নবাগত জেলা প্রশাসক ভাণ্ডারিয়ায় বিজয় দিবস উদযাপন উপলক্ষে প্রস্তুতি সভা ঝালকাঠির নবাগত জেলা প্রশাসককে প্রেসক্লাবের শুভেচ্ছা বানারীপাড়ার ছাত্রীকে ধর্ষণ, কোচিং সেন্টারের পরিচালক ও শিক্ষক গ্রেফতার ব‌রিশালে ডায়াগনস্টিক সেন্টার ও ফার্মেসিকে জ‌রিমানা বরিশালের বাবুগঞ্জে ডাকাত আতঙ্কে মসজিদে মসজিদে মাইকিং
তিন বছরের শিশু সন্তানকে গলা কেটে হত্যা, গ্রেফতার বাবা

তিন বছরের শিশু সন্তানকে গলা কেটে হত্যা, গ্রেফতার বাবা

অনলাইন ডেস্ক ::: গাজীপুরের কালীগঞ্জে তিনবছরের শিশু সন্তানকে ব্লেড দিয়ে গলা কেটে হত্যার অভিযোগ উঠেছে বাবার বিরুদ্ধে। এ ঘটনায় মো. কাজলকে (৩৯) স্থানীয়রা আটক করে পুলিশে দিয়েছে।

রোববার (৬ নভেম্বর) সকালে সোলাইমান নামের শিশুটির মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। এর আগে শনিবার (৫ নভেম্বর) দিনগত রাত সাড়ে ৯টার দিকে উপজেলার জাঙ্গালিয়া দক্ষিণপাড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

পুলিশ প্রাথমিক সুরতহাল শেষে মরদেহটি ময়নাতদন্তের জন্য গাজীপুর শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠিয়েছে। এ ঘটনায় ওই দিন রাতেই নিহতের চাচা মো. আজগর বাদী হয়ে কালীগঞ্জ থানায় একটি হত্যা মামলা করেন।

কালীগঞ্জ থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) মো. শামীম মিয়া বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

গ্রেফতার কাজল উপজেলার জাঙ্গালিয়া দক্ষিণপাড়া গ্রামের মৃত আব্দুল খালেকের ছেলে। তিনি স্থানীয়ভাবে ওয়ার্কশপ শ্রমিকের কাজ করতেন। নিহত সোলাইমান তারই ছেলে। কাজলের ৮ বছরের আরও একটি মেয়ে রয়েছে।

এসআই শামীম নিহতের পরিবারের বরাত দিয়ে জানান, রাত সাড়ে ৯টার দিকে কাজলের স্ত্রী রান্নাঘরে যান। এ সময় কাজল বাড়িতে ফিরে ছেলেকে ঘুমিয়ে থাকতে দেখেন। তখন তাকে ধারালো ব্লেড দিয়ে গলা কেটে দরজা বন্ধ করে ঘরে অবস্থান করেন। কিছুক্ষণ পর তার স্ত্রী এসে ঘরের দরজা বন্ধ পেয়ে ধাক্কাধাক্কি করলেও তা খোলেননি কাজল। পরে দরজা ভেঙে ঘরে গেলে শিশু সোলাইমানকে গলাকাটা অবস্থায় দেখতে পান। পাশে ছিল ব্লেড। পরে তার চিৎকারে আশপাশের লোকজন এগিয়ে এসে কাজলকে আটক করে পুলিশে খবর দেয়। পুলিশ এসে নিহতের মরদেহ উদ্ধার ও কাজলকে গ্রেফতার করে থানায় নিয়ে যায়।

তিনি আরও জানান, এ ঘটনায় নিহতের চাচা থানায় হত্যা মামলা করেন। সেই মামলায় কাজলকে গ্রেফতার দেখিয়ে গাজীপুর আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। অন্যদিকে, শিশুটির মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য গাজীপুর শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

গ্রেফতার কাজলের ভাই আজগর বলেন, কাজল মানসিকভাবে অসুস্থ। মাঝেমধ্যেই তার মানসিক সমস্যা দেখা দেয়।

নিউজটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন




আমাদের ভিজিটর

  • 207,666 জন ভিজিট করেছেন
© All rights reserved © 2019 ajkercrimetimes.com

Design and Developed By Sarjan Faraby