বুধবার, ১২ অগাস্ট ২০২০, ০৭:১৫ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
কোন প্রকার সম্পত্তি সংক্রান্ত অপরাধ যেন বৃদ্ধি না পায় পুলিশ কমিশনার, মোঃ শাহাবুদ্দিন খান রাশিয়ার কাছ থেকে করোনার টিকা কিনতে আগ্রহী ভারতসহ ২০টি দেশ বানারীপাড়ায় আলতা গ্রামের ব্রিজ যাচ্ছে খালে স্বেচ্ছায় পাইলিং করছেন যুবলীগ কর্মী! স্বপ্নের, পদ্মা সেতুর রক্ষণাবেক্ষণের দায়িত্ব পাচ্ছেন ‘কোরিয়ান কোম্পানি কোরিয়া এক্সপ্রেসওয়ে করপোরেশন’ (কেইসি) করোনা ভাইরাসের টিকা নিয়েছেন রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের মেয়ে ১০২ দিন পর নিউজিল্যান্ডে করোনা রোগী শনাক্ত, দেশটির সবচেয়ে বড় শহর অকল্যান্ডে “লকডাউন” বিশ্বের প্রথম করোনার টিকা অনুমোদন দিলো রাশিয়া করোনাভাইরাস: মৃত্যু-আক্রান্ত সর্বোচ্চ ঢাকায়, সর্বনিম্ন ময়মনসিংহে বরিশালে “নিজ কন্যাকে ধর্ষণ করলো বাবা” বিচারের দাবিতে মেয়ে ও মা সহ এলাকাবাসীর মানববন্ধন সেপ্টেম্বর মাসের শেষের দিকে অথবা অক্টোবরের শুরুতে স্বাস্থ্যবিধি মেনে এইচএসসি পরীক্ষা নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজারে এক ‘গার্মেন্টকর্মীকে গণধর্ষণের’ অভিযোগ করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে আরও ১ পুলিশের মৃত্যু করোনাভাইরাস: এ বছর বাতিল হচ্ছে পিইসি-জেএসসি পরীক্ষা সারাদেশের নদী-খাল পাড়ে ১০ লাখ গাছের চারা রোপণ করা হবে, পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী ঝালকাঠি রাজাপুরে বিপুল পরিমান ইয়াবা ট্যাবলেট সহ, আটক ২     করোনাভাইরাসে আক্রান্ত ২৫৪২ জন চিকিৎসক, মারা গেছেন ৭৪ জন করোনাভাইরাস : জন্মভূমিতে ভেন্টিলেটর দিলেন, লিওনেল মেসি যুক্তরাষ্ট্রে স্কুল খোলার তোড়জোড় ‘১৪ দিনেই করোনায় আক্রান্ত’ ৯৭ হাজার শিশু বরিশালে নতুন করে ৩৯ জনের করোনা শনাক্ত, মোট আক্রান্ত ২৬৯৩ জন বরিশালের উজিরপুরে ‘গরু চুরির করে প্রাইভেটকারে পালানোর সময়’ চোর আটক
আত্মত্যাগের মহা নিদর্শনে ইব্রাহিম (আঃ)

আত্মত্যাগের মহা নিদর্শনে ইব্রাহিম (আঃ)

কালের পরিক্রমায় হিজরী বর্ষপুঞ্জির পরিসমাপ্তির পর বছরান্তে আমাদের দ্বারপ্রান্তে আগমন করে কুরবানির দিনগুলো। যা সমগ্র মানবজাতির জন্য গুরুত্বপূর্ণ তাৎপর্য বহন করে।

যেমন- মহান আল্লাহ সূরা হাজ্জ-এর ৩৪ নং আয়াতে ইরশাদ করেন, আমি প্রতিটি সম্প্রদায়ের জন্য (কুরবানীর) নিয়ম করে দিয়েছি। তাদেরকে চতুষ্পদ জন্তু হতে যে রিযক্ দেয়া হয়েছে সেগুলোর উপর তারা যেন আল্লাহর নাম উচ্চারণ করে, (এই বিভিন্ন নিয়ম-পদ্ধতির মূল লক্ষ্য কিন্তু এক- আল্লাহর নির্দেশ পালন), কারণ তোমাদের উপাস্য একমাত্র উপাস্য, কাজেই তাঁর কাছেই আত্মসমর্পণ কর আর সুসংবাদ দাও সেই বিনীতদেরকে- মানব জাতির সেই কুরবানির বিধানটি অতীব প্রাচীন।

বস্তুত মানব ইতিহাসে সর্বপ্রথম কুরবানি হযরত আদম (আঃ) এর দুই পুত্র হাবিল ও কাবিল এর দেয়া কুরবানি থেকেই কুরবানির ইতিহাসের গোড়াপত্তন হয়। যেমন- পবিত্র কুরআন মাজিদে আল্লাহ তায়ালা ইরশাদ করেন, “হে রাসূল আপনি আদমের দুই পুত্রের বৃত্তান্ত আপনি তাদেরকে যথাযথভাবে শোনান। যখন তারা উভয়েই কুরবানি করেছিল। তাদের একজনের কুরবানি কবুল হলো। অন্যজনের কুরবানি কবুল হলো না।” (সুরা মায়েদা ২৭) অবশ্য আমাদের উপর যে কুরবানির বিধান প্রচলিত হয়ে আসছে তা হযরত ইবরাহীম (আঃ) এর আত্মত্যাগের ঘটনারই স্মৃতিবহ।

ইবরাহীম (আঃ) আল্লাহর রাহে যে কুরবানি করেছেন পৃথিবীর ইতিহাসে তা দৃষ্টান্তহীন। আজ থেকে প্রায় সাড়ে চার হাজার বছর আগের কথা। স্বপ্নাদৃষ্ট হলেন আল্লাহর প্রিয় খলিল হযরত ইবরাহীম (আঃ) কুরবানি করতে। তিনি পশু কুরবানি করলেন একটির পর একটি। কিন্তু সে কুরবানি তার প্রতিপালকের নিকট গৃহীত হলো না। হযরত ইবরাহীম (আঃ) নির্দেশ পেলেন এমন বস্তু কুরবানি করতে যা তার কাছে সবচেয়ে বেশি প্রিয়।

কী সেই প্রিয় জিনিস? হযরত ইবরাহীম (আঃ) এর সবচেয়ে প্রিয় বস্তু তো স্বীয় পুত্র ইসমাঈল। তবে কি তার মহান প্রভু ইবরাহীম ও হাজেরার পরম আদরের সন্তান ইসমাইল এর কুরবানি চান? আল্লাহর আদেশ ছিল অতি স্পষ্ট ও দ্ব্যর্থহীন।

সন্দেহেরও কোন অবকাশ ছিল না তাতে। হযরত ইবরাহীম (আঃ) স্তম্ভিত না হয়ে আল্লাহর আদেশের কথা পুত্র ইসমাইলকে জানালেন। জবাবে পুত্র ইসমাইল বললেন, “হে আমার প্রিয় পিতা, আপনি যা আল্লাহর পক্ষ থেকে আদিষ্ট হয়েছেন তা সন্তুষ্টির জন্য আপনি তা পালন করুন। ইনশাল্লাহ্ আপনি আমাকে সবুরকারীদের মধ্যে পাবেন।” (সুরা সাফফাত ১০২) হযরত ইবরাহীম (আঃ) ও প্রিয় পুত্র ইসমাইল (আঃ) উভয়েই আল্লাহর হুকুম পালনে অবিচল সিদ্ধান্তে উপনীত হলেন।

মা হাজেরাও স্বেচ্ছায় আদরের সন্তানকে সাজিয়ে দিলেন। পিতামাতা পুত্রের আল্লাহর পথের কুরবানির এ দৃষ্টান্ত পৃথিবীর ইতিহাসে এটাই প্রথম। বালক ইসমাইলকে ইবরাহীম (আঃ) নিয়ে গেলেন মিনায় (বর্তমান হাজীদের কুরবানির স্থান)।

যখন প্রিয় পুত্র ইসমাইলকে কুরবানি করতে উদ্যত হলেন সাথে সাথে আল্লাহ রাব্বুল আলামীন প্রিয় নবীদ্বয়ের আনুগত্যে সন্তুষ্ট হয়ে তাদের কুরবানি কবুল করলেন। আনুগত্য ও কর্তব্য পরায়ণতার পুরস্কার স্বরূপ একটি মোটা তাজা পশু (দুম্বা) পাঠিয়ে পুত্রের পরিবর্তে জবাই করার হুকুম প্রদান করলেন।

বস্তুতঃ ইবরাহীম (আঃ) এর পুত্র কুরবানি দেয়ার এ অবিস্মরণীয় ঘটনাকে প্রাণবন্ত করে রাখার জন্যই উম্মতে মোহাম্মদীর উপর তা ওয়াজিব করা হয়। সেই থেকে সারা বিশ্বে ঈদুল আযহা বা কুরবানির ঈদ উদ্যাপিত হয়ে আসছে। ইতিহাসের ধারাবাহিকতায় আমাদের সমাজ ও সংস্কৃতিতে ঈদুল আযহা তথা কুরবানি এক ঐতিহ্যময় স্থান দখল করে আছে। চলবে…

লেখকঃ ফিরোজ মাহমুদ
মাদ্রাসা শিক্ষক ও গণমাধ্যম ব্যক্তিত্ব

নিউজটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন




© All rights reserved © 2019 ajkercrimetimes.com
Design By Rana