রবিবার, ১১ এপ্রিল ২০২১, ০৬:২৬ পূর্বাহ্ন

লেখার আগে সবাইকে ভেবে চিন্তে ‘লিখতে হবে’ প্রধান বিচারপতি

লেখার আগে সবাইকে ভেবে চিন্তে ‘লিখতে হবে’ প্রধান বিচারপতি

নিজস্ব প্রতিবেদক : দেশের ইমেজ হলো সবার আগে। এই কারণে লেখার আগে সবাইকে ভেবে চিন্তে লিখতে হবে বলে জানিয়েছেন প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেন। তিনি বলেছেন, লেখেন! কিন্তু এ রকমভাবে কিছু লিখবেন না, যা একজন শিক্ষিত মানুষের জন্য শোভা পায় না।

 

গতকাল (রোববার ৭ মার্চ) ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে করা মামলায় এক আসামির জামিন আবেদনের শুনানিতে প্রধান বিচারপতি এসব কথা বলেন।

 

প্রধানমন্ত্রীসহ বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তি সম্পর্কে নেতিবাচক বিভিন্ন পোস্ট ও ছবি বিকৃত করে ফেসবুকে পোস্ট ও শেয়ার করার অভিযোগে গোলাম সারোয়ারের বিরুদ্ধে মামলা হয়। সিলেট থানায় গত বছরের মার্চে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে ওই মামলা হয়। মামলায় গত বছরের অক্টোবরে হাইকোর্ট রুল দিয়ে সারোয়ারকে অন্তর্বর্তীকালীন জামিন দেন।

 

 

এর বিরুদ্ধে রাষ্ট্রপক্ষ আবেদন করলে গত বছরের ১৮ অক্টোবর চেম্বার আদালতে হাইকোর্টের দেয়া আদেশ স্থগিত হয়। এর ধারাবাহিকতায় আপিল বিভাগের নিয়মিত বেঞ্চে রাষ্ট্রপক্ষের আবেদনটি শুনানি হয়।

 

শুনানিতে গোলাম সারোয়ারের আইনজীবী মো. আসাদুজ্জামান বলেন, এক বছর ধরে কারাগারে আছেন তিনি। এই মামলায় এখন পর্যন্ত অভিযোগপত্র দেয়া হয়নি। তার হৃদযন্ত্রে চারটি স্টেন্ট (রিং) পরানো আছে, স্বাস্থ্যগত কারণে তার জামিন চাওয়া হয়েছে।

 

 

আদালত বলেন, এত স্টেন্ট থাকার পরেও আপনি এসব করেন? তখন আসাদুজ্জামান বলেন, গত ১৪ মার্চ থেকে কারাগারে আছেন। প্রায় এক বছর ধরে বিনা বিচারে কারাগারে আছেন। অভিযোগপত্র হয়নি এখনো। হাইকোর্ট মূলত মেডিকেল গ্রাউন্ডে জামিন দিয়েছেন।

 

প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেন আইনজীবীর উদ্দেশে বলেন, ভবিষ্যতে এগুলো করলে আর ছুটবেন (জামিন) না, যতই কথা বলুন। এসব বাড়াবাড়ি করে দেশের ইমেজ যদি নষ্ট করেন, দেশের ইমেজ হলো সবার আগে।

 

আইনজীবী আসাদুজ্জামান বলেন, গত ১৮ অক্টোবর চেম্বার আদালত থেকে স্থগিতাদেশ (জামিন স্থগিত) দেয়া হয়। তারপর পাঁচ মাস হয়ে গেছে।

 

 

আইনজীবীর উদ্দেশে প্রধান বিচারপতি বলেন, আপনি সতর্ক করবেন। আবার যদি আসে তারপর আর বেল (জামিন) হবে না।

 

 

 

 

 

শুনানি নিয়ে আদালতে রাষ্ট্রপক্ষের আবেদন খারিজ করে আদেশ দেন। আদেশের পর আইনজীবী মো. আসাদুজ্জামান বলেন, ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে সিলেটে র‌্যাবের করা ওই মামলায় সারোয়ারকে হাইকোর্টের দেয়া জামিন বহাল রেখেছেন আপিল বিভাগ। ফলে সারোয়ারের কারামুক্তিতে আইনগত বাধা নেই।

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  





আমাদের ভিজিটর

  • 52,066 জন ভিজিট করেছেন
© All rights reserved © 2019 ajkercrimetimes.com

Design and Developed By Sarjan Faraby