ঢাকারবিবার , ৭ এপ্রিল ২০২৪

সাগরে লঘুচাপ থেকে ঘূর্ণিঝড়ের সম্ভাবনা

ক্রাইম টাইমস রিপোর্ট
এপ্রিল ৭, ২০২৪ ২:৪৬ অপরাহ্ণ
Link Copied!

সংবাদটি শেয়ার করুন....

আবহাওয়া ডেস্ক :: সাগরে লঘুচাপ থেকে ঘূর্ণিঝড়ের সম্ভাবনা

 

চলতি এপ্রিল থেকে আগামী জুন পর্যন্ত বঙ্গোপসাগরে ৩-৪টি লঘুচাপ সৃষ্টি হতে পারে। এরমধ্যে একটি ঘূর্ণিঝড়ে পরিণত হতে পারে। সেই সঙ্গে এই সময়ের মধ্যে দেশে বিক্ষিপ্তভাবে শিলাবৃষ্টিসহ ৬-৮ দিন হালকা থেকে মাঝারি এবং ৩-৫ দিন তীব্র কালবৈশাখী ঝড়সহ বৃষ্টি হতে পারে। আবহাওয়া অধিদপ্তরের তিন মাস মেয়াদী (এপ্রিল-জুন, ২০২৪) সর্বশেষ পূর্বাভাসে এই তথ্য জানানো হয়েছে।
এতে বলা হয়েছে, গত মার্চে সার্বিকভাবে সারাদেশে স্বাভাবিক (-০৮%) বৃষ্টিপাত হয়েছে। তবে ঢাকা, ময়মনসিংহ ও রংপুর বিভাগে স্বাভাবিক অপেক্ষা বেশি; চট্টগ্রাম, রাজশাহী খুলনা ও বরিশাল বিভাগে স্বাভাবিক অপেক্ষা কম এবং সিলেট বিভাগে স্বাভাবিক বৃষ্টিপাত হয়েছে।এরমধ্যে পশ্চিমা লঘুচাপের সঙ্গে পূবালী বায়ুপ্রবাহের সংযোগ ঘটায় ২-৩, ১৪-১৬ ও ১৮-৩১ মার্চ দেশের অনেক স্থানে হালকা থেকে ভারী বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হয়। সেই সঙ্গে বজ্রপাত ও বিক্ষিপ্তভাবে শিলাবৃষ্টিসহ হালকা/মাঝারি ধরনের কালবৈশাখী ঝড় বয়ে যায়। অন্যদিকে, গত মাসে সিলেটে সর্ব্বোচ্চ ৮৯ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত হয় গত ৩১ মার্চ। একই দিন দেশের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ৩৭ দশমিক ২ ডিগ্রি সেলসিয়াস রেকর্ড করা হয়।

আবহাওয়া অধিদপ্তর জানিয়েছে, আগামী জুন পর্যন্ত সময়ে সামগ্রিকভাবে দেশে স্বাভাবিক বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা আছে। পাশাপাশি এই সময়ে বঙ্গোপসাগরে ৩-৪টি লঘুচাপ সৃষ্টি হতে পারে, যার মধ্যে একটি ঘূর্ণিঝড়ে পরিণত হতে পারে। তবে এই সময়ে দিন ও রাতের তাপমাত্রা স্বাভাবিক অপেক্ষা কিছুটা বেশি থাকতে পারে।

এছাড়াও চলতি এপ্রিল থেকে আগামী জুন পর্যন্ত দেশে বিক্ষিপ্তভাবে শিলাসহ ৬-৮ দিন হালকা অথবা মাঝারি এবং ৩-৫ দিন তীব্র কালবৈশাখী ঝড়সহ বৃষ্টি অথবা বজ্রসহ বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা রয়েছে। সেই সঙ্গে এই সময়ে দেশে ৬-৮টি মৃদু (৩৬-৩৭.৯°সে.) অথবা মাঝারি (৩৮-৩৯.৯°সে.) এবং ৩-৪টি তীব্র (৪০-৪১.৯°সে.) থেকে অতি তীব্র (>৪২° সে.) তাপপ্রবাহ বয়ে যেতে পারে।

পূর্বাভাসে জানানো হয়েছে, চলতি এপ্রিলজুড়ে ঢাকায় ১৩০-১৬৫ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত হতে পারে। পাশাপাশি ময়মনসিংহে ১৩৫-১৭৫, চট্টগ্রামে ১৩০-১৬৫, সিলেটে ২৬৫-৩৪০, রাজশাহীতে ৭৫-৯৫, রংপুরে ৮৫-১১০, খুলনায় ৬৫-৯০ এবং বরিশালে ১২০ থেকে ১৫০ মিলিমিটার বৃষ্টি হতে পারে।

অন্যদিকে, আগামী মে মাসে ঢাকায় ২৭৫-৩০৫ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত হতে পারে। পাশাপাশি ময়মনসিংহে ৩৬০-৪০০, চট্টগ্রামে ২৯৫-৩২৫, সিলেটে ৪৮৫-৫৩৫, রাজশাহীতে ১৮৫-২০৫, রংপুরে ২৫০-২৭৫, খুলনায় ১৬৫-১৮৫ এবং বরিশালে ২৪৫ থেকে ২৭৫ মিলিমিটার বৃষ্টি হতে পারে।এছাড়া আগামী জুন মাসে ঢাকায় ৩৪০-৩৭৫ মিলিমিটার বৃষ্টিপাতের পূর্বাভাস দিয়েছে আবহাওয়া অধিদপ্তর। পাশাপাশি এ মাসে ময়মনসিংহে ৪৪০-৪৭০, চট্টগ্রামে ৫৮০-৬২০, সিলেটে ৬২০-৬৪০, রাজশাহীতে ২৯০-৩২০, রংপুরে ৪১০-৪৪০, খুলনায় ২৮০-৩২০ এবং বরিশালে ৪৬০ থেকে ৫১০ মিলিমিটার বৃষ্টি হতে পারে বলে দীর্ঘমেয়াদী পূর্বাভাসে জানানো হয়েছে।